লকডাউন নিয়ে কেন্দ্র সরকারের নতুন সিদ্ধান্ত ২০ লক্ষ সুরক্ষা স্টোর

করোনা ভাইরাসের কারণে ভারত সহ ভারতের প্রতিটি রাজ্যে লকডাউন চলছে।কারণ একমাত্র লকডাউনের মাধ্যমে করোনা ভাইরাসকে নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব।এই ভয়ঙ্কর মহামারী ভাইরাসের উৎপত্তি সম্পর্কে সঠিক তথ্য না পাওয়া গেলেও বিশ্বের প্রায় সকল মানুষ মনে করেন এই ভাইরাসের উৎপত্তি চীন দেশের উহান শহর থেকে।তবে এখনও পর্যন্ত চীন সরকার এটা শিকার করেনি।


বর্তমানে ভারতে ২১ দিনের লকডাউন চলায় সাধারণ মানুষ বিশাল সমস্যায় পড়ছে।এছাড়া এই লকডাউনের সুযোগ নিয়ে এক দল অসাধু ব্যাবসায়ী নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসের মূল্য বৃদ্ধি করে বিক্রি করছে।ফলে সাধারণ মানুষ সঠিক মূল্যে জিনিস কিনতে পারছে না।এই কারণে কেন্দ্র সরকার সাধারণ মানুষের কথা চিন্তা করে একটি বিশাল সিদ্ধান্ত নিয়েছেন।কেন্দ্র সরকার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন যতদিন লকডাউন থাকবে ২০ লক্ষ মুদি দোকানকে সুরক্ষা স্টোরে পরিণত করবে।যেখানে সাধারণ মানুষ নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিস সঠিক মূল্যে লকডাউনের নিয়ম মেনে কিনতে পারবে।

এছাড়া কেন্দ্রীয় খাদ্য মুন্ত্রী বলেন, রেশন ব্যবস্থার সঙ্গে যুক্ত ৮১ কোটি মানুষের ৯ মাসের খাদ্য এখনও কেন্দ্রে মজুত রয়েছে।এছাড়া তিনি আরও বলেন বর্তমানে সরকারের গুদামে ২৯৯.৪৫ লক্ষ মেট্রিক টন চাল এবং ২৩৫.৩৩ লক্ষ মেট্রিক টন গম মজুত রয়েছে।সব মিলিয়ে সরকারের গুদামে এখনও পর্যন্ত ৫৩৪.৭৮ লক্ষ মেট্রিক টন খাদ্যশস্য মজুত রয়েছে।এছাড়া তিনি আরও বলেন প্রতি মাসে সরকারকে ৬০ লক্ষ মেট্রিক টন খাদ্য রেশন ব্যাবস্থার জন্য দিতে হয়।এই ভাবে চলতে থাকলে ৯ মাস খাদ্যশস্যের কোনো সমস্যা হবেনা।

Post a Comment

Previous Post Next Post